সুখবর: বিসিবির নতুন নিয়মে সুযোগ পাবে চার ক্রিকেটার, শীর্ষে আশরাফুল

ফ্র্যাঞ্চাইজি ভিত্তিক বাংলাদেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় এবং গুরুত্বপূর্ণ টুর্নামেন্ট বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল)। এর আগে প্রতিবছরই বিপিএল শুরু হয় বছরের শেষের দিকে অর্থাৎ নভেম্বর মাসে।

তবে চলতি বছরের শেষ দিকে দেশের রাজনৈতিক অবস্থার কথা বিবেচনা করে এগিয়ে আনা হয়েছে বিপিএল। এ বছর অক্টোবরের প্রথম সপ্তাহ থেকে শুরু হবে এ টুর্নামেন্ট। এবং চলবে নভেম্বরের মাঝামাঝি পর্যন্ত।

বুধবার মিরপুর শেরে বাংলার বিসিবি কার্যালয়ে বোর্ড পরিচালকদের সঙ্গে সভা শেষে এ সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন।

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) পঞ্চম আসরের শেষে শোনা গিয়েছিল, আগামী বছরের আসর একমাস এগিয়ে আনা হতে পারে। অবশেষে তাই হলো। বিপিএলের ৬ষ্ট আসর শুরুর সম্ভাব্য তারিখ ঘোষণা করেছে বিসিবি।

আগের বছর থেকে এগিয়ে এবার এই টুর্নামেন্ট শুরু হবে অক্টোবরের প্রথম সপ্তাহে। ৫ অক্টোবর পর্দা উঠে শেষ হবে ১৬ নভেম্বর।

 

বুধবার (১৮ এপ্রিল) কার্যনির্বাহী কমিটির সভা শেষে বিসিবি প্রেসিডেন্ট নাজমুল হাসান পাপন ঘোষণা দিয়েছেন,

‘নীতিগতভাবে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে, অক্টোবরের প্রথম সপ্তাহ থেকেই শুরু হবে বিপিএলের আগামী আসর। ‘বিপিলের পঞ্চম আসরে বিদেশি খেলোয়াড় রাখা হয়েছিল পাঁচজন। তবে এবার তা কমিয়ে আনা হয়েছে চার জনে।

গত আসরের ভালো পারফর্মারও একাদশে বঞ্চিত হয়েছিলেন বিদেশিদের ভিড়ে। কারণ একাদশে খেলানো হতো ৫ জন বিদেশি ক্রিকেটার। যে বিষয়টির সমালোচনা করেছিলেন সাকিব আল হাসানের মত ক্রিকেটাররাও। তাই এবার কমানো হচ্ছে, এই সংখ্যা ৫ থেকে ৪ জন করা হচ্ছে বিদেশি খেলোয়াড়ের কোটা।

আর সেই একজনের জায়গায় খেলতে পারবেন ঘরের ক্রিকেটাররা। সুযোগ পেতে পারেন তারা, যারা ভাল ফর্মে আছেন। সেদিক দিয়ে বিচার করলে আশরাফুল এখন ফর্মের তুঙ্গে আছেন।

এছাড়াও এই বিবেচনায় আছেন আরও কয়েক প্লেয়ার। তারা হলেন নাইম ইসলাম, মার্শাল আইয়ুব, রাকিবুল হক। কিন্তু তালিকার প্রথমেই আছেন আশরাফুল ও শাহরিয়ার নাফিস।

সম্ভাব্য এই তালিকায় আছেন যারাঃ

১/ আশরাফুল

২/ শাহরিয়ার নাফিস

৩/ নাইম ইসলাম

৪/ মার্শাল আইয়ুব

৫/ রাকিবুল হাসান

Share Button

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *